বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১১:২৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবকদলের বাগেরহাট জেলার ছয় টি ইউনিটের কর্মীসভা সম্পূর্ণ।  বন্দর থানা ছাত্রলীগের পূনর্মিলনীর লক্ষ্যে প্রস্তুতি সভা। বিয়ানীবাজারে দুর্ঘটনায় অজ্ঞাত যুবক নিহত শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়তে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেনঃ শরীফ আহমেদ এম পি ঢাকা ০৫আসন ২০০০ মানুষকে খাবার দিলেন রিপন। রানিশংকৈল’র ৫ নং বাচোর ইউনিয়নের ভিক্ষুক মোঃ আকবর আলি পাচ্ছেন না প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া উপহারের সেই বাড়ি।। মতলব উত্তর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যৌন হয়রানির স্বীকার কিশোরী ব্রাজিল দলে ডাক পেলেন আর ও ৯ জন ফুটবলার কারাগারে মারা গেলেন রাণীশংকৈলের মাদক মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামি রির্চালিশন ও নেইমারের সাথে একই ক্লাবে খেলতে মুখিয়ে আছে। 
নোটিশ :

মে দিবসে শ্রমিক ও মালিক সুসম্পর্ক বজায় রেখে জাতীয় উৎপাদন বৃদ্ধির আহবান : সাবেক ছাত্রনেতা মাসুদ দুলাল।

মে দিবসে শ্রমিক ও মালিক সুসম্পর্ক বজায় রেখে জাতীয় উৎপাদন বৃদ্ধির আহবান : সাবেক ছাত্রনেতা মাসুদ দুলাল।

 

 

 

সংরক্ষণ ও সার্বিক জীবনমান শ্রমিক এবং মালিক পরস্পর উন্নয়নে সরকারের পাশাপাশি সুসম্পর্ক বজায় রেখে জাতীয় শ্রমিক সংগঠন , মালিকপক্ষ ও উৎপাদন বৃদ্ধিতে সংশ্লিষ্ট সকল পক্ষের নিবেদিত হওয়ার, সমন্বিত উদ্যোগ অত্যত্ত আহবান জানিয়েছেন সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা এ এইচ এম মাসুদ দুলাল।

 

তিনি বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার পাশাপাশি রাজনৈতিক অর্থনৈতিক মুক্তির স্বপ্ন দেখে ছিলেন। শ্রমজীবী মানুষের স্বার্থের কথা উল্লেখ করেন। মহান মে দিবসের ত্যাগের মহিমায় উদ্ভাসিত হয়ে বঙ্গবন্ধুর সেই স্বপ্ন পূরণে দেশের আপামর মেহনতি ও শ্রমজীবী মানুষকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানাচ্ছি ।

 

 

মে দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশসহ বিশ্বের সকল শ্রমজীবী মানুষকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাই। আমি মনে করি মে দিবসের এবারের প্রতিপাদ্য ‘ শ্রমিক – মালিক ঐক্য গড়ি , উন্নয়নের শপথ করি ’ অত্যন্ত সময়ােপযােগী হয়েছে ।

 

আরো বলেন , শ্রমজীবী ও মেহনতি মানুষই হচ্ছে দেশের উন্নয়নের প্রধান চালিকাশক্তি । তাদের অক্লান্ত পরিশ্রমের মধ্যেই নিহিত রয়েছে দেশের সম্ভাবনাময় ভবিষ্যৎ । বাংলাদেশের আর্থ সামাজিক উন্নয়ন তথা ‘ রূপকল্প -২০২১ ও ২০৪১ ‘ বাস্তবায়নে শ্রমজীবী মানুষের ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ । দেশের ক্রমবর্ধমান উন্নয়নের সমান্তরালে বাড়ছে শিল্প – প্রতিষ্ঠান ও কলকারখানার সংখ্যা।এসব প্রতিষ্ঠানে কর্মরত আছে বিপুল সংখ্যক শ্রমজীবী মানুষ । দেশের উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি ও টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে এসব শ্রমজীবী মানুষের ন্যায্য মজুরি প্রদান , দক্ষতাবৃদ্ধি , সুন্দর ও নিরাপদ কর্মপরিবেশ , পেশাগত নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণসহ সার্বিক কল্যাণ সাধন খুবই জরুরি ।

 

বর্তমান শ্রমিকবান্ধব সরকার এ লক্ষ্যে শ্রমিকদের নূনতম মজুরি নির্ধারণ , শিশুশ্রম বন্ধ , নারী শ্রমিক ও কর্মচারীদের জন্য মাতৃত্বকালীন ছুটির সময় বৃদ্ধি , কর্মক্ষেত্রে শ্রমিকদের নিরাপত্তাসহ শ্রমিকের স্বাস্থ্যসম্মত কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে কার্যকর ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে ।

 

মে দিবস কেবল অধিকার আদায়ের দিন নয় , নিজেদের আত্মবিশ্লেষণ ও সম্মিলিতভাবে দেশ গড়ার অঙ্গীকারও বটে । শ্রমিক – মালিক পারস্পরিক সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক শ্ৰমক্ষেত্রে স্থিতিশীলতা রক্ষা উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধিতে সহায়ক ভূমিকা পালন করে ।

 

তিনি মহান মে দিবস -২০২১ উপলক্ষে গৃহীত সকল কর্মসূচির সফলতা কামনা করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমরা

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১